বাসে ডাকাতি করতে গিয়ে ধরা পড়ল নারী ডাকাত

শেয়ার করুন

নিউজ ডেস্ক:

দিনাজপুরের নবাবগঞ্জ উপজেলায় বাসে ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে। এ সময় ডাকাতদের হামলায় গুরুতর আহত হয়েছেন তিনজন যাত্রী। এ ঘটনায় নাজমুন নাহার রিপা নামে এক নারী ডাকাতকে আটক করেছে পুলিশ।

সোমবার ভোর ৫টায় দিনাজপুর-গোবিন্দগঞ্জ মাহাসড়কের নবাবগঞ্জ মতিহারা ব্রিজের কাছ তাকে আটক করা হয়। আটক নাজমুন নাহার দিনাজপুর ঘোড়াঘাট উপজেলার সেলিম শেখের স্ত্রী।

আহতরা হলেন, রানিশংকৈল উপজেলা জসিম উদ্দিনের ছেলে অলিন, ঠাকুর গাঁও জেলার আব্দুল গফ্ফারের ছেলে জুয়েল রানা, নবাবগঞ্জ উপজেলার জয়নাল আবেদিনের ছেলে জামাল হোসেন।

বিরামপুর সার্কেলের সিনিয়র এএসপি মিথুন সরকার বলেন, রোববার রাতে ঢাকার যাত্রাবাড়ী থেকে রোজিনা পরিবহন যাত্রী নিয়ে ঠাকুরগাঁও রানি শংকৈলে যাচ্ছিল। যাত্রীবেশে ওই বাসে আটজন ডাকাত ওঠে। পথে গোবিন্দগঞ্জ থেকে দিনাজপুর আসার সময় তারা যাত্রীদের জিম্মি করে ডাকাতি শুরু করে। পথে কাটাবাড়ি এলাকায় গাড়ির সহকারী পালিয়ে গিয়ে ৯৯৯-এ ফোন করে বিষয়টি জানান।

তিনি আরো বলেন, ফোন পেয়ে ঘোড়াঘাট থানা পুলিশ গাড়িটির পিছু নেয়। এদিকে বিরামপুর সার্কেলের এএসপি নবাবগঞ্জ থানা পুলিশকে সঙ্গে নিয়ে দিনাজপুর-গোবিন্দগঞ্জ মহাসড়কের দলার দরগা বাজের গাছের গুঁড়ি দিয়ে রাস্তা অবোরোধ করে। গাড়িটি মতিহারা ব্রিজের পাশে রেখে ডাকাত দল পালিয়ে যায়। এ সময় ধাওয়া করে এক নারী ডাকাতকে আটক করা হয়। পরে বাস থেকে পাঁচটি ধারালো চাকু এবং পার্শ্ববর্তী জমিতে একটি রক্তাক্ত চাকু উদ্ধার করা হয়। আটক নারীকে নবাবগঞ্জ থানায় নেয়া হয়েছে। সূত্র: ডেইলী বাংলাদেশ

এম২৪নিউজ/আখতার