ভরণপোষণের দায়িত্ব নিয়ে মাকে হত্যা, কারাগারে ছেলে

শেয়ার করুন

অনলাইন ডেস্ক:

পঞ্চগড়ের আটোয়ারীতে যাত্রী রাণী বেওয়া নামে এক নারীকে হত্যার অভিযোগে তার ছেলে যতীন চন্দ্র বর্মণকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

বুধবার বিকেলে আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিলে তাকে কারাগারে পাঠান বিচারক। নিহত রাণী উপজেলার বড়সিঙ্গিয়া ঝাকুয়াপাড়া এলাকার রমেশ চন্দ্র বর্মণের স্ত্রী।

পুলিশ জানায়, রাণী বেওয়াকে দেখভাল করতেন বড় ছেলে ভবেশ চন্দ্র বর্মণ। সম্প্রতি মায়ের ভরণপোষণের দায়িত্ব নেন যতীন। এ নিয়ে ২ এপ্রিল মা-ছেলের কথা কাটাকাটি হয়। একপর্যায়ে মাকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে বিভিন্ন স্থানে আঘাত করেন যতীন। এ সময় তার একটি পা ভেঙে যায়। গুরুতর আহত হলেও মাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়নি। বাড়িতেই গ্রাম্য চিকিৎসকের তত্ত্বাবধানে চিকিৎসা চলছিল। মঙ্গলবার বিকেলে তিনি মারা যান। এরপর পালিয়ে যান ছেলে যতীন।

বুধবার ভোরে শ্বশুরবাড়ি থেকে যতীনকে গ্রেফতার করে পুলিশ। এ ঘটনায় বুধবার দুপুরে ছোট ভাই যতীনের বিরুদ্ধে মামলা করেন যাত্রী রাণীর বড় ছেলে ভবেশ চন্দ্র বর্মণ।

আটোয়ারী থানার ওসি ইজার উদ্দীন বলেন, মাকে হত্যার অভিযোগে যতীনকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। তিনি আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন। সূত্র: ডেইলী বাংলাদেশ

এম২৪নিউজ/আখতার

Leave a Reply