ত্রিভুজ প্রেমের বলি স্কুলছাত্রী ইভা হত্যাকান্ডে জড়িত আরও এক যুবক গ্রেপ্তার

শেয়ার করুন

রংপুর অফিস:

রংপুরের কাউনিয়ায় ত্রিভুজ প্রেমের বলি স্কুল ছাত্রী সানজিদা আক্তার ইভা হত্যাকান্ডে জড়িত মেহেদী হাসান পলাশ (২২) নামে আরও এক যুবককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

রোববার গভীররাতে পীরগাছা উপজেলার ছোট কল্যাণী গ্রাম এলাকা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। মেহেদী হাসান পলাশ ওই এলাকার মোক্তার ড্রাইভারের ছেলে। সোমবার তাকে হত্যা মামলায় গ্রেপ্তার দেখিয়ে আদালতে সোপর্দ করাহয়েছে।বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন কাউনিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোন্তাছির বিল্লাহ্।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ও কাউনিয়া থানার পরিদর্শক (তদন্ত) সেলিমুর রহমান বলেন, মূলত ইভার সঙ্গে প্রেমের সম্পর্কের বিচ্ছেদে ক্ষুব্ধ হয়ে সায়েম, প্রিন্স ও পলাশ তিন জন মিলে মঙ্গলবার (১৬ আগস্ট) ইভাকে ঘুরতে নিয়ে যায়। ওইদিন রাত সাড়ে নয়টার দিকে কাউনিয়া উপজেলার হরিচরণ লস্কর গ্রামের কুটিরপাড়-মধুপুর সড়কের পাশে ধারালো চাকু দিয়ে ইভার গলায়, ঘাড়ে, পিঠে ও পাজারে একাধিক জখম করে ইভাকে রাস্তার পাশে ফেলে পালিয়ে যায়।

পরে তাকে উদ্ধার করে কাউনিয়া হাসপাতালে নেওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত্যু ঘোষণা করেন। এ ঘটনায় ইভার বাবা বাদী হয়ে মামলা দায়ের করেছেন।সানজিদা আক্তার ইভা কাউনিয়য়া উপজেলার কুর্শা ইউনিয়নের গোড়াই গ্রামের ইব্রাহীম মিয়ার মেয়ে এবং পার্শ্ববর্তী পীরগাছা উপজেলার বড়দরগাহ উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণীর ছাত্রী।

এর আগে ইভা হত্যাকান্ডের মূলহোতা নায়েদুল ইসলাম সায়েমকে বুধবার গ্রেপ্তার করা হয়। আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দিতে সায়েম এ হত্যাকান্ডের দায় স্বীকার করেছেন এবং কিলিং মিশনে আরও দুইজন জড়িত থাকার কথা জানায়। তার দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে বৃহস্পতিবার শেখ মনিরুজ্জামান প্রিন্সকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। তারা দুইজনেই কারাগারে রয়েছে।

রোববার রাতে অভিযান চালিয়ে স্কুলছাত্রী ইভা হত্যাকান্ডে অংশ নেওয়া আরেক যুবক মেহেদী হাসান পলাশকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।মেহেদী হাসান পলাশ শেখ মনিরুজ্জামান প্রিন্সের বন্ধু। পলাশকে সোমবার রংপুর আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে। শেখ মনিরুজ্জামান প্রিন্সকে সাত দিনের রিমান্ড চেয়ে আদালতে আবেদন করা হয়েছে।

এম২৪নিউজ/আখতার

Leave a Reply