ওসিসহ চার পুলিশের বিরুদ্ধে চাঁদাবাজির মামলা

শেয়ার করুন

অনলাইন ডেস্ক:

ঢাকার কোতোয়ালি থানার ওসি মিজানুর রহমানসহ পাঁচজনের বিরুদ্ধে এক ব্যবসায়ী চাঁদাবাজির অভিযোগ এনে মামলা করেছেন।

মঙ্গলবার ঢাকা মহানগর হাকিম আবু সুফিয়ান মো. নোমান মামলা তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন।

ওসির সঙ্গে কোতোয়ালি থানার এসআই আনিসুল ইসলাম, এএসআই খায়রুল ইসলাম, শহিদুল ইসলাম ও সোর্স দেলোয়ার হোসেনের বিরুদ্ধে গত ১৭ নভেম্বরে আদালতে আবেদন করেছিলেন ক্ষুদ্র ব্যবসায়ী মো. রহিম।

তার অভিযোগে বলা হয়, ১২ অক্টোবর সন্ধ্যায় কাজ শেষে চরকালীগঞ্জ জেলা পরিষদ মার্কেট থেকে বাসায় ফিরছিলেন। রাত ৮টার দিকে দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানার চুনকুটিয়া ব্রিজের উপর পৌঁছালে অজ্ঞাতনামা তিনজন তার গতিরোধ করেন। তারা নিজেদের ঢাকা জেলার ডিবি পুলিশ পরিচয় দেন। তারা রহিমকে একটি দোকানে নিয়ে তল্লাশি করেন। তবে তার কাছ থেকে কিছু উদ্ধার করতে পারেননি।

এরপর এসআই আনিসুল ইসলাম, এএসআই খায়রুল ইসলাম ও সোর্স দেলোয়ার নিজেদের কাছ থেকে ৬৫০ পিস ইয়াবা বের করে বলেন, এগুলো রহিমের কাছ থেকে পাওয়া গেছে। এই সময় রহিমকে আনিসুল ইসলাম বলেন, ‘যদি ফাঁসতে না চাস তাহলে দুই লাখ টাকা জোগাড় কর। না হলে মাদক ব্যবসায়ী সাজিয়ে মামলায় ফাঁসিয়ে দেব।’

তখন মামলা থেকে বাঁচার জন্য রহিম নিজের কাছে থাকা এক ভরি স্বর্ণের চেইন, নগদ ১৩ হাজার টাকা আনিসুল ইসলামের হাতে তুলে দেন। পরে পরিবারের সঙ্গে যোগাযোগ করে রহিম আরও ৫০ হাজার টাকা দেন। তারপরও ওসি তাকে ডেকে ১০ পিস ইয়াবার মামলায় গ্রেফতার দেখানোর কথা বলে কারাগারে পাঠিয়ে দেন। সূত্র: ইত্তেফাক অনলাইন

এম২৪নিউজ/আখতার